ঢাকা, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১ আশ্বিন ১৪২৬

শেয়ার কেনা-বেচার কার্যক্রম সরাসরি দেখতে চায় বিএসইসি

২০১৯ সেপ্টেম্বর ০৯ ০৬:২৩:১৯
শেয়ার কেনা-বেচার কার্যক্রম সরাসরি দেখতে চায় বিএসইসি

পুঁজিবাজার উত্থান-পতনে বিভিন্ন ব্রোকার হাউসের ভূমিকা নিরূপণে লেনদেন চলাকালীন (রিয়েল টাইমে) প্রতিষ্ঠানগুলোর শেয়ার ক্রয়-বিক্রয় সংক্রান্ত কার্যক্রম দেখতে চায় নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। চলতি বছর সূচকের অব্যাহত পতনের পরিপ্রেক্ষিতে এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে এসইসি। এজন্য লেনদেন সংক্রান্ত সফটওয়্যারের সর্বশেষ প্রযুক্তির মডিউল বিএসইসিতে সরবরাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জকে (ডিএসই) জানিয়েছে কমিশন।

চলতি বছরের ২৪ জানুয়ারির পর থেকে টানা দরপতন হয় পুঁজিবাজারে। গত ২২ জুলাই ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচকটি সাড়ে ১৬ শতাংশ হারিয়ে ৪ হাজার ৯৬৬ পয়েন্টে নেমে আসে। এরপর পরবর্তী এক মাস কিছুটা স্থিতিশীলতা থাকার পর গত ২৫ আগস্ট থেকে আবারও পতন ধারা দেখা দেয় পুঁজিবাজারে। দুইদিন আগে এ সূচকটি নেমে আসে ৪ হাজার ৯৮৬ পয়েন্টে। এমন পরিস্থিতিতে লেনদেন চলাকালীন শীর্ষ ব্রোকার ও এসব প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ গ্রাহকদের শেয়ার কেনা-বেচার তথ্য পর্যালোচনার জন্য ডিএসইর সার্ভিল্যান্স ব্যবস্থার সরাসরি সংযোগ চায় বিএসইসি।

জানা গেছে, বিএসইসির সার্ভিল্যান্স বিভাগ স্টেট অব দ্য আর্ট সার্ভিল্যান্স প্রযুক্তি ইনস্ট্যান্ট ওয়াচ মার্কেট সার্ভিল্যান্স সিস্টেম (আইডব্লিউএমএসএস) ব্যবহার করে থাকে। এর মাধ্যমে পুঁজিবাজার পর্যবেক্ষণ ও তত্ত্বাবধান প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে এসইসির সার্ভিল্যান্স বিভাগ বহুমাত্রিক নজরদারি কার্যক্রম সম্পাদন করে থাকে।

পাশাপাশি ডিএসইর পূর্ববর্তী লেনদেন পদ্ধতি টেসার (দি ইলেক্ট্রনিক সিকিউরিটি আর্কিটেকচার) সঙ্গে সংযুক্ত একটি স্বতন্ত্র টার্মিনাল থেকে ব্রোকার পজিশন সংক্রান্ত প্রাপ্ত তথ্য বিচার-বিশ্লেষণ নজরদারি কার্যক্রম সম্পাদন করত বিএসইসি। যার মাধ্যমে শীর্ষ ব্রোকার হাউসগুলোর শেয়ার ক্রয়-বিক্রয়, নিট কেনা-বেচা, শীর্ষ গ্রাহকদের শেয়ার ক্রয়-বিক্রয়, ব্রোকারদের নির্দিষ্ট সিকিউরিটিজ ক্রয়-বিক্রয় ও গ্রাহকদের নির্দিষ্ট সিকিউরিটিজ ক্রয়-বিক্রয় সংক্রান্ত তথ্য তাৎক্ষণিকভাবে পেত এসইসি।

পরবর্তী সময়ে ডিএসই টেসার পরিবর্তে নাসডাক ওএমএক্স ও ফ্লেক্সট্রেড সিস্টেম কোম্পানির সহযোগিতায় স্বয়ংক্রিয় অত্যাধুনিক ট্রেডিং সফটওয়্যার ডিএসই এক্সট্রিম আইনেট ম্যাচিং ইঞ্জিন ও ডিএসই ফ্লেক্সটিপি চালু করে। কিন্তু ডিএসই সর্বশেষ প্রযুক্তির ওই মডিউলটি কমিশনকে সরবরাহ করেনি। ফলে বাজার উত্থান-পতনে ভূমিকা রাখা শীর্ষ ব্রোকার হাউস ও তাদের শীর্ষ গ্রাহকদের শেয়ার ক্রয়-বিক্রয় সংক্রান্ত তথ্য ও নিট পজিশন লেনদেন চলাকালীন পর্যবেক্ষণ করতে পারে না ডিএসই। এমন পরিস্থিতিতে লেনদেনে ব্যবহৃত সর্বশেষ প্রযুক্তির মডিউলটির একটি টার্মিনাল বিএসইসিতে স্থাপনের জন্য ডিএসইকে নির্দেশ দিয়েছে কমিশন।

শেয়ারবার্তা / হামিদ

সংবেদনশীল তথ্য এর সর্বশেষ খবর

উপরে