ঢাকা, শনিবার, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩০ ভাদ্র ১৪২৬

সোনার বাংলা ইন্সুরেন্সের লেনদেনে হঠাৎ বড় উল্লম্ফন

২০১৯ জুলাই ২০ ১৫:২৬:৫৪
সোনার বাংলা ইন্সুরেন্সের লেনদেনে হঠাৎ বড় উল্লম্ফন

বিদায়ী সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস বৃহস্পতিবার প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সোনার বাংলা ইন্সুরেন্সের লেননেদেন হঠৎ বড় উল্লম্ফন দেখা গেছে। গত ৫ মাসের লেনদেনের মধ্যে এদিন কোম্পানিটির লেনদেন ছিল সর্বোচ্চ। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা যায়, বছরজুড়ে সোনার বাংলা ইন্সুরেন্সের শেয়ার গড়ে ২ লাখ থেকে ৮ লাখের মধ্যে লেনদেন হতে দেখা যায়। কিন্তু বৃহস্পতিবার হঠাৎ করে কোম্পানিটির ৪৪ লাখ ৪৩ হাজার ৩১২টি শেয়ার লেনদেন হয়। আগেরদিন (বুধবার) কোম্পানিটির শেয়ার ১০ শতাংশ সর্বোচ্চ দরে ৩২ টাকা ২০ পয়সায় বিক্রেতাশুন্য ছিল। সেদিনও শেয়ার লেনদেন হয়েছে মাত্র ৪ লাখ ৭৫ হাজার ৫২৯টি। তবে পরের দিন (বৃহস্পতিবার) লেনদেনে বড় উল্লম্ফন দেখা গেলেও শেয়ার দর কমে দাঁড়ায় ৩০ টাকা ১০ পয়সায়। এদিন দর কমে যায় ২ টাকা ১০ পয়সা বা ৬ দশমিক ৫২ শতাংশ।

বাজার সংশ্লিষ্ট একটি সূত্র জানায়, গত ছয় মাসের মধ্যে বিদায়ী সপ্তাহের মঙ্গলবার কোম্পানিটির শেয়ার দর ছিল সর্বনিম্ন ২৯ টাকা ১০ পয়সা। আর বৃহস্পতিবার ছিল ২য় সর্বনিম্ন দর ৩০ টাকা ১০ পয়সা। গত ৬ মাসের মধ্যে এর শেয়ার দর ছিল সর্বোচ্চ ৬৯ টাকা ৬০ টাকা এবং সর্বনিম্ন ২৯ টাকা ১০ পয়সা। বৃহস্পতিবার কোম্পানিটির বিপুল সংখ্যক শেয়ার লেনদেন দেখে তাঁরা অনুমান করছেন, কোম্পানিটির শেয়ার একটি বড় গ্রুপ থেকে অন্য একটি বড় গ্রুপের কাছে হাতবদল হয়েছে। বর্তমান নাজুক বাজারে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের পক্ষে এত বিপুল সংখ্যক শেয়ার কেনাবেচা করা একেবারেই অসম্ভব বলে তাঁদের ধারণা।

এর আগে গত ১৬ এপ্রিল কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছিল ১৪ লাখ ২ হাজার ৬৬২টি। সেদিন এর দর ছিল ৫২ টাকা ৭০ পয়সা। সেদিনও এর শেয়ার দর নেতিবাচক প্রবণতায় ছিল। এরপরের দিন ১৭ এপ্রিল কোম্পানিটির শেয়ার দর উঠে যায় ৫৭ টাকা ৯০ পয়সায়।

তারও আগে গত ২ ফেব্রুয়ারি কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছিল ৫৩ লাখ ৯ হাজার ১২২টি এবং সেদিন এর শেয়ার দর ছিল ৬০ টাকা ১০ পয়সা। এর কয়েক দিন পর ২২ ফেব্রুয়ারি এর শেয়ার উঠে দাঁড়ায় ৬৭ টাকা ১০ পয়সায়।

আর্থিক প্রতিবেদনে দেখা যায়, চলতি অর্থবছরের প্রথম প্রান্তিকে (জানুয়ারি-মার্চ ২০১৯) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ৪৯ পয়সা। আগের অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় ছিল ৪৩ পয়সা। আগের বছরের তুলনায় এবছর আয়ে প্রবৃদ্ধি রয়েছে প্রায় ১৪ শতাংশ।

উল্লেখ্য, ৩০ ডিসেম্বর ২০১৮ হিসাব বছরের জন্য কোম্পানিটি ৬ শতাংশ ক্যাশ ও ৬ শতাংশ স্টক মিলে মোট ১২ শতাংশ লভ্যাংশ দিয়েছে। আগের বছর ১০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ দিয়েছিল।

সর্বশেষ হিসাব অনুযায়ী, সোনার বাংলা ইন্সুরেন্সের মোট শেয়ার সংখ্যা ৩ কোটি ৭৭ লাখ ৭৪ হাজার ৯৫০টি। এর মধ্যে উদ্যোক্তা পরিচালকদের কাছে রয়েছে ৩২ দশমিক ৯৬ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে ১৬ দশমিক ৫ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে ৫০ দশমিক ৯৯ শতাংশ।

সর্বশেষ দরের ভিত্তিতে কোম্পানিটির বর্তমান মূল্য আয় অনুপাত (পিই রেশিও) ১৫ দশমিক ৩৬ পয়েন্ট।

শেয়ারবার্তা / মামুন

সংবেদনশীল তথ্য এর সর্বশেষ খবর

উপরে